Posts

খাঁটি ঘি এর খাঁটি কথা-ভালো মানের ঘি কিভাবে পাবো ?

ভোজনপ্রেমী বাঙালিদের স্পেশাল রান্নায় ঘি ছাড়া চলেই না। মেহমানদারী থেকে শুরু করে বৃষ্টি-বিলাসে খাবার পাতে ঘি থাকার ব্যাপারটা একটু অন্যরকম।
লবনবিহীন মাখনকে জ্বাল দিয়ে ঘি প্রস্তুত করা হয়। ঘি এর গন্ধ-স্বাদ অনেকটাই নির্ভর করে সংগৃহিত দুধ ও প্রস্তুতিতে জ্বাল দেয়ার প্রক্রিয়ার উপর। উৎকৃষ্ট গরুর দুধ থেকে নেয়া মাখন এর উপর ঘি এর গুনাগুন এবং ঘ্রান নির্ভর করে।

ঘি এর জন্য দুধ সংগ্রহে গাভীর খাদ্য তালিকায় নজর না দিলেই নয়। গাভীর দুধ উৎপাদনের পরিমানের উপর গাভীর খাদ্যের উৎপাদন ও পরিমান বৃদ্ধি আবশ্যক। অর্থাৎ গাভীকে খাদ্য সরবরাহের উপর তার দুধের পরিমান ও মান নির্ভর করে। গাভীর খাদ্য তালিকায় সুষম খাদ্য থাকলে বা কাঁচা ঘাস এর সাথে ( চাল বা ধান এর কুঁড়া, গমের ভুষি, ভুট্টা, তিল/বাদামের খৈল, খেসারি ভাংগা ) ইত্যাদি দানাদার খাদ্য থাকলে তা থেকে সংগৃহিত দুধ এর ঘি বেশি পুষ্টিগুণ সমৃদ্ধ এবং ভালো হয়।

এছাড়া দুধ জ্বাল দেয়ার সময় গ্যাস এর চুলা বা ইলেকট্রিক হিটার ব্যবহার করলে ঘি এর গুনাগুন বজায় থাকেনা বা অনেকাংশেই নষ্ট হয়ে যায়। তাই উৎকৃষ্ট ঘি পাওয়ার জন্য দুধ মাটির চুলায় জ্বাল দেয়াই ভালো।

ইয়াম্মী বাই ড্রেস-আপ গরুর দুধের ক্রীম দিয়ে স্বাস্থ্যসম্মত ভাবে তৈরি ইয়াম্মী ঘী। ঘ্রাণ ও স্বাদে অতুলনীয় ইয়াম্মী ঘী যা পোলাও, সেমাই সহ যে কোন খাবারের স্বাদ অনেক বাড়ায়। দুধ সংগ্রহের গাভীর খাদ্য তালিকা থেকে শুরু করে মাখন জ্বাল দেয়ার প্রক্রিয়া এবং সঠিক ভাবে অনাদ্র জায়গায় সঠিক তাপমাত্রায় সংরক্ষণ এর উপর আমরা বিশেষ নজর দিয়ে থাকি। তাই ইয়াম্মী বাই ড্রেস-আপ এর ঘি স্বাদ, গন্ধ, বর্ণ, ঘনত্বে বাজারের সাধারণ ঘি এর থেকে যথেষ্ট আলাদা।

ইয়াম্মী বাই ড্রেস-আপ এর অন্যান্য পণ্য গুলাঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *